র্সবশেষ শিরোনাম

রবিবার, নভেম্বর ১৮, ২০১৮

বাংলা পত্রিকা

Main Menu

সপ্তাহের শুরুতে সম্পূর্ণ নতুন সংবাদ নিয়ে

আমার বিরুদ্ধে অভিযোগ বিশ্বাস করে নি বাংলাদেশ সরকার

আমি সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডকে উৎসাহিত করেছি এমনটা বিশ্বাস করে নি বাংলাদেশ সরকার। এ কথা বলেছেন বহুল আলোচিত ইসলামিক বক্তা ও সম্প্রতি তীব্র বিতর্কের কেন্দ্রে উঠে আসা ড. জাকির নায়েক। এ খবর দিয়েছে বার্তা সংস্থা পিটিআই। এতে বলা হয়, ঢাকায় সম্প্রতি আর্টিজান রেস্তোরাঁয় হামলাকারীরা তার বক্তব্যে ওই হামলা চালাতে উৎসাহিত হচ্ছে বলে ব্যাপক সমালোচনার মুখে রয়েছেন জাকির নায়েক। তার বিরুদ্ধে ভারত, বাংলাদেশ পদক্ষেপ নিচ্ছে। এরই প্রেক্ষিতে শনিবার তিনি বলেছেন, বাংলাদেশ সরকারের কোন কর্মকর্তা তাকে বলেন নি যে, সন্ত্রাসী কর্মকা- তিনি উৎসাহিত করেছেন। ড. জাকির নায়েক বলেছেন, আমি বাংলাদেশ সরকারের লোকজনের সঙ্গে কথা বলেছি। তারা আমাকে বলেছেন যে, নিরপরাধ মানুষকে হত্যা করতে বাংলাদেশী সন্ত্রাসীদের উদ্বুদ্ধ করেছি এমনটা তারা বিশ্বাস করেন না। সে (ঘাতক) আমার একজন ভক্ত হতে পারে, এটা একটি আলাদা বিষয়। এক ভিডিও বার্তায় জাকির নায়েক বলেন, বিশ্বজুড়ে আমার লাখ লাখ ভক্ত আছেন। তার মধ্যে শতকরা ৫০ ভাগেরও বেশি বাংলাদেশী। কিন্তু আমি নিরপরাধ মানুষকে হত্যা করতে উদ্বুদ্ধ করেছি এটা একরকম শয়তানি।
উল্লেখ্য ড. জাকির নায়েক এখন সৌদি আরবে অবস্থান করছেন। তিনি বলেছেন, আমাকে এক সময় নিষিদ্ধ করেছিল যুক্তরাজ্য। আনুষ্ঠানিকভাবে কোন দেশ আমাকে নিষিদ্ধ করেছে এমন প্রমাণ নেই। মালয়েশিয়ার কথা বলবেন? তারা তো অবৈধ কাজ করেছে। তিন বছরেরও কম সময় আগে আমি সেখানে তোকোহ মল হিজরাহ ও কিং ফয়সল ইন্টারন্যাশনাল প্রাইজ পাই। এটা মালয়েশিয়ার সর্বোচ্চ পদক।  গত ২৫ বছরের মধ্যে এ পুরস্কার পাওয়া চতুর্থ বিদেশী আমি। যে ব্যক্তি সন্ত্রাসকে সমর্থন করে তাকে কি তারা (মালয়েশিয়া) এমন পুরস্কার দিতে পারে? তিনি অভিযোগ করেন, যাচাই বাছাই করে ঢাকার পত্রপত্রিকার খবর তুলে দিচ্ছে ভারতীয় মিডিয়া।

এ রকম আরো খবর

বিএনপির পাশে চীন, অভিযোগ হাসিনার দলের

নয়াদিল্লি: ভোটের ঘণ্টা বেজে যাওয়া বাংলাদেশের রাজনৈতিক প্রক্রিয়ায় এ বারবিস্তারিত

  • ক্যালিফোর্নিয়ায় ভয়াবহ দাবানলে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৫০
  • ক্যালিফোর্নিয়ায় দাবানলে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩১
  • যে কারণে মার্কিন মধ্যবর্তী নির্বাচন গুরুত্বপূর্ণ
  • কারাগার থেকে ছাড়া পেলেন আসিয়া বিবি
  • ‘ইতিহাস গড়তে আসিনি, আমরা পরিবর্তনের জন্য এসেছি’
  • ‘আমিই ইউএস কংগ্রেসে প্রথম হিজাবধারী মুসলিম নারী’
  • ট্রাম্পের সামনে অনেক বাধা আছে অভিশংসনের ভয়ও
  • নিম্নকক্ষে ডেমোক্রেটদের বিজয়
  • আলোচিত বিজয়ী  যারা
  • সিনেটে রিপাবলিকানদের জয় প্রতিনিধি পরিষদ ডেমোক্রেটদের
  • অভিবাসী ভীতি ও অর্থনীতিই মূল হাতিয়ার প্রেসিডেন্টের : বর্ণবাদের দ্বন্দ্বই ট্রাম্পের মূলধন : মঙ্গলবার বদলে যেতে পারে ট্রাম্প-আমেরিকা
  • হাডসন নদীতে দুই সউদী বোনের লাশ!
  • error: Content is protected !! Please don\'t try to copy.