র্সবশেষ শিরোনাম

বুধবার, নভেম্বর ২১, ২০১৮

বাংলা পত্রিকা

Main Menu

সপ্তাহের শুরুতে সম্পূর্ণ নতুন সংবাদ নিয়ে

যুক্তরাষ্ট্র আ.লীগের ব্যতিক্রমী আয়োজনে প্রধানমন্ত্রীর ৭১তম জন্মদিন পালন

নিউইয়র্ক: প্রধানমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার ৭১তম জন্মদিন উপলক্ষে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ ব্যতিক্রমী আয়োজনে দিনটি পলন করেছে। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে এবার আনুষ্ঠানিকভাবে দিনটি পালনে বারণ থাকায় যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ ‘কেক বিহীন’ দোয়া মাহফিল আর ‘উন্নয়নে শেখ হাসিনার সরকার’ শীর্ষক এক আলোচনা সভার আয়োজন করে। প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনের প্রাক্কালে অর্থাৎ ২৭ সেপ্টেম্বর বুধবার রাতে জ্যাকসন হাইটসের নিউ মেজবান রেস্টুরেন্টের পার্টি হলে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এতে শেখ হাসিনার সুস্বাস্থ্য কামনায় মিলাদ ও দোয়া পরিচালনা করেন মাওলানা আশরাফুল ইসলাম।
উল্লেখ্য, ২৮ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার ছিলো প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭১তম জন্মদিন। আরো উল্লেখ্য, জাতিসংঘের ৭২তম সাধারণ অধিবেশনে যোগদান শেষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভার্জিনিয়ায় পুত্র সজিব ওয়াজেদ জয়ের বাসায় অবকাশ যাপন করছেন। ২৫ সেপ্টেম্বর সোমবার তার গলব্লাডার অপারেশন সম্পন্ন হয়। প্রধানমন্ত্রী এখন পূর্ণ বিশ্রামে রয়েছেন বলে সর্বশেষ খবরে জানা গেছে। মায়ানমারের রোহিঙ্গা সমস্যায় আক্রান্ত লাখো মানুষ আর বাংলাদেশের সাম্প্রতিক বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের চরম দু:খ-দূর্দশার কথা বিবেচনা করে প্রধানমন্ত্রী তার জন্মদিন পালন না করার জন্য দলীয় নেতা-কর্মীদের প্রতি নির্দেশ দেন। – খবর ইউএনএ’র।
বুধবার রাত ৯ টার দিকে দোয়া অনুষ্ঠিত দোয়া মাহফিল শেষে আলোচনা চলে মধ্যরাত এটা পর্যন্ত। যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের অন্যতম সহ সভাপতি আকতার হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত যৌথভাবে সভটি পরিচালনা করেন সংগঠনের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল হাসিব মামুন ও মহিউদ্দিন দেওয়ান। আলোচনা সভা চলাকালীন সময়ে রাত ১২টার পর পরই উপস্থিত দলীয় নেতা-কর্মীরা ‘হ্যাপি বার্থ ডে টু শেখ হাসিনা’ শ্লোগান তোলে এবং করতালী দেয়।
আলোচনায় অংশ নেন সহ-সভাপতি সৈয়দ বসারত আলী, মাহবুবুর রহমান, সামসুদ্দিন আজাদ ও আবুল কাশেম, সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক ও এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান নিজাম চৌধুরী, কোষাধ্যক্ষ আবুল মনসুর খান, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক মুজাহিদুল ইসলাম, কৃষি বিষয়ক সম্পাদক আশরাফুজ্জামান, প্রবাসী কল্যাণ সম্পাদক সোলায়মান আলী, ত্রাণ ও পূনর্বাসন সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন, মানবাধিকার সম্পাদক মিসবাহ আহমেদ, যুব বিষয়ক সম্পাদক মাহবুবুর রহমান টুকু, উপ-দপ্তর সম্পাদক এম এ মালেক, উপ-প্রচার সম্পাদক তৈয়বুর রহমান টনি, লক্ষীপুর জেলা আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক সাখাওয়াত বিশ্বাস, নিউইয়র্ক মহানগর আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক এডভোকেট মোর্শেদা জামান, আওয়ামী লীগ নেতা খসরুজ্জামান খসরু, এম নূরুল আমীন, মুজিবুল মওলা, মহিলা আওয়ামী লীগ সভানেত্রী মমতাজ শাহনাজ, সহ সভাপতি রওশন আরা বেগম, মহিলা লীগ নেত্রী শিরিন আক্তার দিবা, সেলিনা আজাদ প্রমুখ।
আলোচনায় অংশ নিয়ে বক্তারা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মকান্ড তুলে ধরে বলেন, ‘জাতির জনক’ বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা হাজারো সমস্যা আর ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করে বাংলাদেশকে উন্নয়নের মহাসড়কে দাঁড় করিয়েছে। দেশের এই উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে আওয়ামী লীগ সরকারের বিকল্প নেই। আর তাই ‘শেখ হাসিনার সরকার, বারবার দরকার’। বক্তারা বলেন, জননেত্রী মেখ হাসিনা তার মেধা আর যোগ্যতা বলে একদিকে যেমন বাংলাদেশকে উন্নয়নের রোল মডেল তুলে ধরেছেন এবং আন্তর্জাতিক মহল তার স্বীকৃতি দিচ্ছে, অপরদিকে বিদেশীরা তাকে ‘মাদার অব হিউম্যানিটি’ উপাধিতে ভূষিত করেছে। সবমিলিয়ে বাংলাদেশ আজ অত্যন্ত অহংকারের আসনে বিশ্ব পরিমন্ডলে অধিষ্ঠিত বলে বক্তারা অভিমত ব্যক্ত করেন।
বক্তারা আওয়ামী লীগ সরকারের ভিষণ-২০২০ বাস্তবায়নের মাধ্যমে বাংলাদেশকে ২০২১ সালের মধ্যে মধ্যম আয়ের দেশে আর ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত দেশে পরিণত করতে জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে ঐক্যবদ্ধভাবে শক্তিশালী করার জন্য দলীয় নেতা-কর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান।
সভায় কোন কোন বক্তা তাদের বক্তব্যে দলের গঠনতন্ত্র ও নিয়ম-কানুন মানা এবং সিনিয়রদের প্রতি শ্রদ্ধাশীল মনোভাব থাকা সহ নেতা-কর্মীদের একে অপরের সাথে সৌহার্দ্যপূর্ণ আচরণের উপরও গুরুত্বারোপ করেন। বক্তারা বলেন, বেয়াদপ, মাসলম্যানদের জায়গা যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগে নেই।
এদিকে ওয়শিংটন ডিসি থেকে বুধবার রাতে নিউইয়র্ক ফিরে জ্যাকসন হাইটসে চলমান যুক্তরাষ্ট্্র আওয়ামী লীগের সভায় ড. সিদ্দিকুর রহমান প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার নিদের্শে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন না করা এবং তার গল ব্লাডার অপারেশন পরবর্তী তথ্য দলীয় নেতা-কর্মীদের অবহিত করেন এবং ১ অক্টোবর রোববার বিকেল চারটায় প্রধানমন্ত্রী ওয়াশিংটনে দলীয় নেতা-কর্মীদের সাথে মিলিত হওয়ার ইচ্ছে প্রকাশ করেছেন বলে জানান। এসময় দলের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সামাদ আজাদ ও সাংগঠনিক সম্পাদক ফারুক আহমেদ তার সাথে ছিলেন।
সভায় যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ এবং দলের অন্যান্য সহযোগী ও অঙ্গ সংগঠনের বিপুল সংখ্যক নেতা-কর্মী উপস্থিত ছিলেন। তাদের পরিচয় করিয়ে দেয়া হয়। এদের মধ্যে উল্লেখযোগ্যরা হলেন: যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ নেতা আলী হোসেন গজনবী, কফিল চৌধুরী, জর্জিয়া আওয়ামী লীগ নেতা নুরুল ইসলাম নাহিদ, নিউইয়র্ক ষ্টেট আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি শেখ আতিকুল ইসলাম, সৈয়দ আতিকুল ইসলাম, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ সভাপতি দরুদ মিয়া রনেল, যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক জামাল হোসেন, সেবুল মিয়া ও ইফজাল আহমেদ চৌধুরী, যুক্তরাষ্ট্র স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি নুরুজ্জামান সরদার, সহ সাধারণ সম্পাদক গোলাম কিবরিয়া, শ্রমিক লীগ নেতা ইয়াকুত রহমান সহ রফিকুল ইসলাম, টি মোল্লা, হুমায়ুন আহমেদ, মোহাম্মদ জিন্নাহ, রফিক পাটোয়ারী, জহিরুল ইসলাম প্রমুখ।

 

 

এ রকম আরো খবর

বুধবার পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী

বাংলা পত্রিকা ডেস্ক: বুধবার (২১ নভেম্বর) পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.)।বিস্তারিত

যেকোন মূল্যে সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচনই কাম্য

বাংলা পত্রিকা রিপোর্ট: বাংলাদেশের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন আসন্ন। নির্বাচনবিস্তারিত

এস্টোরিয়ায় বাংলাদেশী গ্রোসারীতে ডাকাতি ॥ একজন গুলিবিদ্ধ

বাংলা পত্রিকা রিপোর্ট: শনিবার সন্ধ্যায় এস্টোরিয়ার ৩৬ এভিনুর বনফুল গ্রোসারীতেবিস্তারিত

  • এনাম চৌধুরীর মাতৃবিয়োগ
  • প্রবাস থেকে যারা মনোনয়ন চাচ্ছেন
  • এম এম শাহীনের বিকল্পধারায় যোগদান
  • কমিউনিটির পরিচিত মুখ জামান তপনের মাতৃবিয়োগ
  • অবিলম্বে খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবী
  • ‘বাংলাদেশ উন্নয়ন মেলা’য় অগ্রগতির জয়গান
  • মুক্তধারার সপ্তাহব্যাপী কর্মসূচী
  • ব্রঙ্কসের খলিল বিরিয়ানীতে হালাল টার্কির অর্ডার নেয়া হচ্ছে
  • নিউজার্সীর পেটারসনে ‘বাংলাদেশ বুলেবার্ড’ নামে সড়ক হচ্ছে
  • কবীর’স বেকারীর প্রতিষ্ঠাতা হুমায়ুন কবীর নেই
  • মৌলভীবাজারে সৌহার্দ্য-সম্প্রীতির রাজনীতি বিরাজমান
  • নিউইয়র্ক হামলা : বাংলাদেশী আকায়েদ দোষী সাব্যস্ত
  • error: Content is protected !! Please don\'t try to copy.