র্সবশেষ শিরোনাম

বুধবার, এপ্রিল ২৪, ২০১৯

বাংলা পত্রিকা

Main Menu

সপ্তাহের শুরুতে সম্পূর্ণ নতুন সংবাদ নিয়ে

১০০% হালাল খাবারের গ্যারান্টি : ৮০০ আসনের পার্টি হল

বাংলাদেশী মালিকানাধী ‘জয়া হল’র জনপ্রিয়তা তুঙ্গে

বাংলা পত্রিকা রিপোর্ট: নিউইয়র্কে বাংলাদেশী মালিকানাধীন অন্যতম অভিজাত ব্যাঙ্কুয়েট হল এন্ড রেষ্টুরেন্টের নাম হচ্ছে ‘জয়া হল’। সিটির কুইন্স বরোর উডহ্যাভেন বুলেভার্ডে প্রতিষ্ঠিত জয়া হলের কদর দিন দিন বাড়ছে। বাংলাদেশী কমিউনিটি ছাড়াও আমেরিকান সহ অন্যান্য কমিউনিটির সকল প্রকার অনুষ্ঠান আয়োজনে জয়া হলের সুনাম বাড়ছেই।
জয়া হলের অন্যতম স্বত্তাধিকারী, কমিউনিটির পরিচিত মুখ মোহাম্মদ আলীম বাংলা পত্রিকাকে বলেন, জয়া হল মূলত: একটি করপোরেট প্রতিষ্ঠান। পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছেন চারজন বাংলাদেশী। তাদের মধ্যে মহিবুর রহমান রুহেল অন্যতম।
তিনি বলেন, মূলত: মানুষের সেবা দেয়ার মাধ্যমে ব্যবসা করাই আমাদের মূল লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য। তিন বছর আগে ‘জয়া হল’ প্রতিষ্ঠা করা হয়। সুপরিসর, সুসজ্জিত এই হলে ৫০ থেকে ৮০০ লোকের জন্য যেকোন ধরনের পার্টি আয়োজনের ব্যবস্থা রয়েছে। জন্মদিন, সুইট সিক্সিটিন, বিয়ে, বেবী সাওয়ার থেকে শুরু করে যেকোন ধর্মীয় অনুষ্ঠান বিশেষ করে ইফতার পার্টি ও মাহফিল অনুষ্ঠান করার সকল ব্যবস্থা রয়েছে জয়া হলে। এছাড়াও যেকোন সংগঠন বা প্রতিষ্ঠানের সভা-সমাবেশ ও পার্টির আয়োজন করার সকল প্রকার সুযোগ সুবিধা রয়েছে।
মোহাম্মদ আলীম তার অভিজ্ঞতার আলোকে বলেন, নিউইয়র্ক সিটিতে অনেক ‘ব্যাঙ্কুয়েট হল এন্ড রেষ্টুরেন্ট’ রয়েছে যেগুলোতে হালাল খাবার পরিবশেন করার কথা এবং বড় বড় অক্ষরে ‘আরবী-বাংলা’ সহ বিভিন্ন ভাষায় ‘১০০% হালাল’ উল্লেখ রয়েছে। কিন্তু সেখানে ৯৯ পাসের্›টও হালাল খাবার পরিবেশন করা হয় না। বলতে গেলে তারা ‘হালাল’ শব্দ ব্যবহার করে গ্রাহকদের সাথে প্রতারণা করছে। অপরদিকে যেকোন পার্টিতে হালাল খাবার পরিবেশনের ক্ষেত্রে জয়া হলের কোন ছাড় নেই। এসব অনুষ্ঠানে শতভাগ হালাল খাবার পরিবেশন করা হয়ে থাকে। সেই সাথে সর্বোচ্চ সেবা। তিনি বলেন, আমাদের ৩ জন মুসিলম সেফ সহ ১৭/১৮জন স্টাফ নিজস্ব স্টাফ রয়েছে। তাই জয়া হল কর্তৃপক্ষ শতকরা ১০০% হালাল খাবার পরিবেশন করে থাকে। আমাদের রয়েছে বাহারী বাংলাদেশী ও ইন্ডিয়ান খাবার। রয়েছে এক্সক্লুসিভ পার্টির আয়োজন।
তিনি বলেন, খাবারের মান এবং যেকোন পার্টির স্ট্যান্ডার্ড বজায় রেখেই আমরা সুলভ মূল্যে জয়া হল ভাড়া দিয়ে থাকি। তবে বাংলাদেশী কমিউনিটির জন্য রয়েছে বিশেষ ছাড়। জয়া হলের সেবা নিশ্চিত হতে এবং গ্রাহকদের মানসিক স্বস্তির জন্য ‘জয়া হল’ বুকিং নেয়ার আগে তিনি এটি পরিদর্শন করার অনুরোধ সংশ্লিষ্টদের প্রতি জানান।
মোহাম্মদ আলীম জানান, নিউইয়র্কের সুপরিচিত প্রতিষ্ঠান খানস টিউটোরিয়াল এবং কমিউনিটির অন্যতম বৃহৎ সামাজিক সংগঠন বাংলাদেশ বিয়ানীবাজার সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সমিতি ইউএসএ’র বড় বড় অনুষ্ঠান ছাড়াও মূলধারার বিভিন্ন অনুষ্ঠান সফলার সাথে আয়োজন করে জয়া হল ইতিমধ্যেই সবার মন জয় করেছে। জয়া হল বুকিং নিতে যোগাযোগের নম্বর ৯১৭-৩২৮-২২৩৯ (আলীম) অথবা ৬৪৬-৫৯৩-৩৩৪৮ (রুহেল)। ফ্যাক্স: ৭১৮-৯৯৭-৬৪৬৮, ই-মেইল: jh@joyahall.com, website: www.joyahall.com

 

এ রকম আরো খবর

বৈশাখী পদক পাচ্ছেন ফখরুল ইসলাম দেলোয়ার

নিউইয়র্ক (ইউএনএ): ‘হৃদয় নাচে বৈশাখী সাজে’ শ্লোগান নিয়ে প্রবাসের অন্যতমবিস্তারিত

  • প্রধানমন্ত্রীর প্রটোকল অফিসার হলেন মোঃ আবু জাফর রাজু
  • ১৫ এপ্রিল ২০১৯ সংখ্যা
  • জ্যাকসন হাইটসে ‘টাইম টেলিভিশন বৈশাখী মেলা’ ১৩-১৪ এপ্রিল : প্রধান শিল্পী ফেরদৌস আরা
  • নিউইয়র্ক বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের সভা অনুষ্ঠিত
  • প্রবাসীদের প্রত্যাশা পূরণে সবার প্রার্থনা কামনা
  • ফারাক্কা ইস্যুতে বাংলাদেশ সরকারকে যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণের দাবী
  • কমিউনিটি বোর্ড মেম্বার হলেন শাহ নেওয়াজ
  • ১ এপ্রিল ২০১৯ সংখ্যা
  • ফারাক্কা কমিটির সভা ৬ এপ্রিল শনিবার
  • ‘ইনফিনিটি অ্যাওয়ার্ড’ পেলেন বাংলাদেশের শহীদুল আলম
  • শেরওয়ান আহমেদ চৌধুরী আর নেই
  • আইনের যথাযথ প্রয়োগ চান প্রবাসীরা
  • error: Content is protected !! Please don\'t try to copy.