র্সবশেষ শিরোনাম

বুধবার, ডিসেম্বর ১২, ২০১৮

বাংলা পত্রিকা

Main Menu

সপ্তাহের শুরুতে সম্পূর্ণ নতুন সংবাদ নিয়ে

সাংবাদিক সম্মেলনে বাংলাদেশ সোসাইটির নির্বাচন কমিশন

গঠনতন্ত্র ও বাই-ল’জকে শতভাগ অনুসরণ করেই নির্বাচন পরিচালনা করা হচ্ছে

নিউইয়র্ক: বাংলাদেশ সোসাইটি ইনক’র গঠনতন্ত্র ও বাই-ল’জকে শতভাগ অনুসরণ করেই নির্বাচন পরিচালনা করা হচ্ছে এবং নির্বাচন কমিশন (ইসি) একটি সুষ্ঠ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্পন্ন করতে সর্বদা সচেষ্ট ও বদ্ধপরিকর বলে দাবী করেছেন সোসাইটির নির্বাচন কমিশন। ইসি কর্মকর্তারা একটি প্যানেল কর্তৃক তাদের বিরুদ্ধে পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ নাকোচ এবং অভিযোকে ভীত্তিহীন দাবী করে আরো বলেছেন, ভোটার সহ জনমনে বিভ্রান্তি ছড়াতেই ইসি’র বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ ছড়ানো হচ্ছে। বৃহস্পতিবার (১১ অক্টোবর) সন্ধ্যায় আয়োজিত এক সাংবাদিক সম্মেলনে ইসি’র কর্মকর্তারা এসব কথা বলেন। খবর ইউএনএ’র।
সিটির এলমহাস্টেস্থ বাংলাদেশ সোসাইটির নিজস্ব কার্যালয়ে আয়োজিত সাংবাদিক সম্মেলনের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন নির্বাচন কমিশনার মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন। এরপর লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন অপর নির্বাচন কশিমনার মোহাম্মদ এ হাকিম মিয়া। পরবর্তীতে সোসাইটির আসন্ন নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী একটি প্যানেল কর্তৃক ইসি’র বিরুদ্ধে আনীত বিভিন্ন অভিযোগের জবাব দেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার জামাল ইউ আহমেদ। এসময় নির্বাচন কমিশনের অপর তিন সদস্য যথাক্রমে কাওসারুজ্জামান (কয়েস), মোহাম্মদ আর সরকার ও খোকন মোশাররফ।
সাংবাদিক সম্মেলনে নির্বাচন কমিশনার মোহাম্মদ এ হাকিম মিয়া লিখিত বক্তব্যে বলেন, আসন্ন নির্বাচনে প্রতিদ্বন্ধিতাকারী একটি পরিষদের কয়েকজন কর্মকর্তা বিগত কিছুদিন যাবৎ বিভিন্নভাবে নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে বিষোদাগার করে বাংলাদেশ সোসাইটির সম্মানিত সদস্য ও ভোটারদের বিভ্রান্ত করার অপচেষ্টা করছেন এবং সেই সাথে দুইজন প্রার্থীর প্রার্থীতা বাতিল ও অপর একজন প্রার্থীর প্রার্থীতা গ্রহণ সম্পর্কে সংবিধান ও বাই ল’জ-এর মনগড়া অপব্যাখ্যা করছেন। এমনকি তাঁরা নির্বাচন কমিশনের নিরপেক্ষতা ও সততা নিয়ে কটাক্ষ করতেও দ্বিধাবোধ করেন নাই। আমরা তাদের এই দুঃখজনক ও অনভিপ্রত কর্মকান্ড ও বক্তব্যের তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করছি এবং ভবিষ্যতে এই ধরনের অনাকাক্সিক্ষত, অপ্রত্যাশিত ও ভিত্তিহীন অভিযোগ উত্থাপন করে জনমনে বিভ্রান্তি ছড়ানোর অপচেষ্টা থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানাচ্ছি।
লিখিত বক্তব্যে আরো বলা হয়: বাংলাদেশ সোসাইটির সম্মানিত ভোটারদের দৃঢ়তার সাথে আস্বস্ত ও নিশ্চিত করে বলতে চাই যে, আমরা আমাদের উপর অর্পিত দায়িত্বের প্রতি অত্যন্ত শ্রদ্ধাশীল এবং এই পবিত্র ও গুরু দায়িত্ব অত্যন্ত নিষ্ঠার সাথে সুচারু ও নিরপেক্ষভাবে পালনে বদ্ধ পরিকর। আমাদের কর্মকান্ড পরিচালনার চালিকাশক্তি সংগঠনের গঠনতন্ত্র ও নির্বাচনী বাই ল’জ, কোন ব্যক্তি, গোষ্ঠি বা তাদের চোখ রাঙ্গানী নয়। আমরা এ যাবৎ পর্যন্ত নির্বাচনী কার্যক্রম পরিচালনা সংক্রান্ত প্রতিটি সিদ্ধান্ত গঠনতন্ত্র ও নির্বাচনী বাই-ল’জকে একশত ভাগ অনুসরন করে গ্রহন করেছি এবং ভবিষ্যতেও তাই করা হবে। আমরা একটি সুষ্ঠ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্পন্ন করতে সর্বদা সচেষ্ট ও বদ্ধপরিকর। নির্বাচন সংক্রান্ত যেকোন রকমের অপপ্রচার বিশ্বাস না করার জন্য বিনিত অনুরোধ জানানোর পাশাপাশি আসন্ন নির্বাচনে প্রতিদ্বন্ধিতাকারী সকল প্রার্থী ও তাদের সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকে তাদের নির্বাচনী প্রচার কার্যক্রমের প্রতিটি ক্ষেত্রে নির্বাচনী আচরনবিধি মেনে চলার এবং সুষ্ঠ নির্বাচনী পরিবেশ বজায় রাখার আহ্বান জানাচ্ছি।
প্রধান নির্বাচন কমিশনার জামাল ইউ আহমেদ তার বক্তব্যের সময় নির্বাচনী তফসিল ঘোষণা সহ সোসাইটির নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী ‘নয়ন-আলী’ প্যানেলের দুই সদস্যের প্রার্থীতা বাতিলের কারণ ব্যাখা সহ অন্যান্য অনিয়ম বিষয়ে সোসাইটির গঠনতন্ত্র ও নির্বাচনী বাই ল’জ তুলে ধরে তাদের ব্যাখা প্রদান করেন। তিনি বলেন, আমরা চাইনি নির্বাচন নিয়ে কোন প্রার্থীর কোন গোপন তথ্য প্রকাশ করতে। কিন্তু আমাদের পিঠ দেয়ালে ঠেকে গেছে বলেই সাংবাদিক সম্মেলন করে সম্মানিত ভোটার সহ কমিউনিটিকে আসল তশ্য জানাতে বাধ্য হচ্চি। তিনি বলেন, একটি প্যানেলের দুটি সদস্যের মনোনয়নপত্র বাতল হওয়ার বিষয়ে তারা যে ব্যাখা দিচ্ছেন বা দাবী করছেন তা সঠিক নয় এবং সোসাইটির গঠনতন্ত্র ও বাই ল’জ অ্যালাও করে না। প্রকৃত পক্ষে ঐ দুই সদস্যের একটিতে প্রস্কাবকারী ও সমর্থনকারীর স্বাক্ষর নেই এবং অপরদিকে সমর্থনকারীর স্বাক্ষর নেই। তিনি পাল্টার প্রশ্ন করে বলেন, একটি প্যানেরে ১৯টি পদের ১৭টি মনোনয়নপত্রের প্রস্তাবকারী ও সমর্থনকারীর স্বাক্ষর সঠিক থাকলেও ঐ দুই পদে ব্যতিক্রম হলো কেনো?
জামাল ইউ আহমেদ বলেন, আমরা নির্বাচন কমিশন শতভাগ সততার সাথে নির্বাচনী কর্মকান্ড পরিচালনা করছি। আর সোসাইটির নির্বাচনের দাবী-দাওয়া কারো ‘মামার বাড়ী’র আব্দার হতে পারে না। তিনি বলেন, নির্বাচনের সকল প্রস্তুুিত সম্পন্ন এবং ৬ অক্টোবর অনুষ্ঠিত প্রার্থীদের সাথে ইসি’র মতবিনিময় সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেকই ইভিএম মেশিনে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। তিনি বলেনম, অতীতে কে কিভাবে নির্বাচন পরিচালনা করেছেন, সেটা বড় কথা নয় বা তাদের পথ ধরেই যে আমাদের নির্বাচন পরিচালনা করতে হবে তা নয়। আমরা নিরপেক্ষ কিনা, গঠনতন্ত্র আর বাই ল’জ মেনে নির্বাচন পরিচালনা করছি না সেটাই বড় কথা।

এ রকম আরো খবর

এবিবিএ’র নতুন সংগঠনিক কমিটি গঠিত

নিউইয়র্ক: নিউইয়র্ক তথা যুক্তরাষ্ট্রের বাংলাদেশী ব্যবসায়ীদের সংগঠন ‘আমেরিকান-বাংলাদেশী বিজনেস অ্যালায়েন্স-এবিবিএ’রবিস্তারিত

নাসাউ কলিসিয়ামে অনুষ্ঠিতব্য ফোবানাই আসল ফোবানা

নিউইয়র্ক: আগামী বছর যুক্তরাষ্ট্রের লেবার যে উইকেন্ডে বিশ্বের রাজধানী খ্যাতবিস্তারিত

  • ফোবানা’র ‘ট্রেড মার্ক’ কারো ব্যক্তিগত সম্পত্তি নয়
  • ‘নিরাপদ সড়ক চাই’ আন্দোলন বিশ্বব্যাপী জোরদার করতে হবে
  • সাংবাদিক মামুনের ছোট্ট কন্যার মৃত্যুতে নিউইয়র্ক প্রেসক্লাবের শোক
  • নিউইয়র্ক বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের কোষাধ্যক্ষ মমিন মজুমদারের মাতৃবিয়োগ
  • নিউইয়র্কে বিপুল উৎসাহে থ্যাংকস গিভিং ডে পালিত : টাইম টিভি ও বাংলা পত্রিকায় ব্যতিক্রমী আয়োজন
  • বাংলাদেশ সোসাইটির মামলার নতুন তারিখ ৮ জানুয়ারী
  • এস্টোরিয়ায় প্রতিবাদ সভা ২ ডিসেম্বর
  • তৈয়বুর রহমান টনির ভ্রাতৃবিয়োগ
  • এনওয়াইপিডিতে বাংলাদেশী অফিসারদের প্রশংসা
  • বুধবার পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী
  • যেকোন মূল্যে সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচনই কাম্য
  • এস্টোরিয়ায় বাংলাদেশী গ্রোসারীতে ডাকাতি ॥ একজন গুলিবিদ্ধ
  • error: Content is protected !! Please don\'t try to copy.