র্সবশেষ শিরোনাম

শনিবার, মার্চ ২৩, ২০১৯

বাংলা পত্রিকা

Main Menu

সপ্তাহের শুরুতে সম্পূর্ণ নতুন সংবাদ নিয়ে

বাংলা পত্রিকায় নাহিদ আহমেদ

মৌলভীবাজারে সৌহার্দ্য-সম্প্রীতির রাজনীতি বিরাজমান

বাংলা পত্রিকা রিপোর্ট: বিশিষ্ট রাজনীতিক, মৌলভীবাজার জেলা যুব লীগের সভাপতি ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহ সাধারণ সম্পাদক নাহিদ আহমেদ বলেছেন, পারিবারিকভাবে আমরা রাজনৈতিক পরিবারের সন্তান। আর ব্যক্তিগতভাবে আমি সৌহার্দ্য-সম্প্রীতির রাজনীতি করি এবং রাজনীতিই বিশ্বাস করি। আর তাই আমি মনে করি বাংলাদেশের অন্যতম জেলা মৌলভীবাজারে সৌহার্দ্য-সম্প্রীতির রাজনীতি বিরাজমান। তিনি বলেন আমার বাসার সামনেই জেলা বিএনপি’র অন্যতম শীর্ষ নেতার বাসা। সকাল-বিকেল তার সাথে দেখা হয়, কথা হয়। তাই আমিও আশা করি দেশের সর্বত্রই সৌহার্দ্য-সম্প্রীতির রাজনীতি বিরাজ থাকুক। আমি হানাহানীর রাজনীতি চাইনা, জ্বালাও-পোড়াও-এর রাজনীতি চাই না। ‘জাতির জনক’ বঙ্গবন্ধু কন্যা, প্রধানমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ হাসিনা প্রমান করেছেন কিভাবে সৌহার্দ্য-সম্প্রীতির রাজনীতি করতে হয়।
নাহিদ আহমেদ বলেন, আমরা মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সন্তান। তার চাচা আজিজুর রহমান মৌলভীবাজার জেলার একাধিকবার নির্বাচিত এমপি ছিলেন এবং কেন্দ্রীয় আওয়ামীগের যুগ্ম সম্পাদক ছাড়াও জাতীয় সংসদের হুইপ ছিলেন। বর্তমানে তিনি জেলা পরিষদের চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করছেন। তার উত্তরসূরী উপলক্ষে আগামী দিনে প্রবাসীরা নতুন মুখ-কে জেলার যোগ্য জনপ্রতিনিধি হিসেবে দেখ চান বলেও তিনি অভিমত ব্যক্ত করেন।
এক প্রশ্নের উত্তরে নাহিদ আহমেদ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়ন কর্মকান্ডের প্রশংসা করে বলেন, সবার সহযোগিতা পেলে মৌলভীবাজার জেলাতেও উন্নয়ন অব্যাহত থাকবে। এজন্য তিনি আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগকে নৌকায় ভোট দিয়ে জয়ী করার আহ্বান জানান।
নাহিদ আহমেদ বলেন, বর্তমান সরকারের আমলে মৌলভীবাজারে আশানুরূপ উন্নয়ন সাধিত হয়েছে। যা ইতিপূর্বে আর কোন সরকারের সময় হয়নি। এই উন্নয়নের সকল কৃতিত্ব জননেত্রী শেখ হাসিনার আওয়ামী লীগ সরকার।
অপর এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্র সফলকালীন সময়ে প্রবাসীদের মধ্যকার দেশপ্রেম আমাকে অভিভুত করেছে। এবারই প্রথম যুক্তরাষ্ট্র সফরে এসে প্রবাসী মৌলভীবাজারবাসী আমাকে সম্মান দেখিয়েছে তাতে আমার কৃতজ্ঞতার শেষ নেই। আমি প্রবাসী মৌলভীবাজারবাসীদের কাছে ঋণী। তিনি প্রবাসী মৌলভীবাজারবাসীদের জেলায় বিনিয়োগের আহ্বান জানিয়ে বলেন, শুধু মৌলভীবাজারে নয়, সারা দেশেই বিনিয়োগের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। সরকারের ডিজিটাল কর্মকান্ডে অনেক দূর্নীতি রোধ হয়েছে। এখন অনলাইনেই টেন্ডার দেয়া যায়।
অপর এক প্রশ্নের জাবাবে বলেন, আমরা ঐতিহ্যবাহী যুবলীগের রাজনীতি করি। আমারা প্রিয় এই সংগঠনের ঐতিহ্য বজায় রেখেই রাজনীতি করতে চাই।

এ রকম আরো খবর

  • কবি আল মাহমুদ কর্মগুণে বাংলা সাহিত্যে অমর হয়ে থাকবেন
  • ইতিহাস সৃষ্টি করলো বাংলাদেশীদের স্বেচ্চাসেবী সংগঠন : ওজনপার্কে ৭০ মিলিয়ন ডলারের এফোর্ডেবল হাউজিং
  • এশিয়ান ট্রেড, ফুড ফেয়ার শুরু হচ্ছে শনিবার
  • যুক্তরাষ্ট্র আ.লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের দোয়া
  • আইআরএস’র নতুন ঘোষণা : ৫২ হাজার ডলার বা তদুর্ধ পাওনা থাকলে পাসপোর্ট নবায়ন বা ইস্যু হবে না
  • প্রবাসী টাঙ্গাইলবাসী ইউএসএ’র পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত
  • মনিরুল ইসলাম শিকদারের জানাজা অনুষ্ঠিত
  • এসকে সিনহার ফাঁসি দাবি
  • নিউইয়র্কে মনিরুল ইসলাম শিকদারের অস্বাভাবিক মৃত্যু
  • জামাইকায় দূর্বৃত্তের গুলিতে নিজ বাসায় বাংলাদেশী খুন
  • নিউইয়র্ক সিটির পাবলিক এডভোকেট নির্বাচনে জুমানী উইলিয়ামস জয়ী
  • বাংলাদেশের স্বাধীনতার প্রকৃত ইতিহাস রচনা করতে হবে
  • error: Content is protected !! Please don\'t try to copy.