র্সবশেষ শিরোনাম

মঙ্গলবার, জানুয়ারি ২২, ২০১৯

বাংলা পত্রিকা

Main Menu

সপ্তাহের শুরুতে সম্পূর্ণ নতুন সংবাদ নিয়ে

শুভ নববর্ষ-২০১৯

বাংলা পত্রিকা ডেস্ক: ‘আজি এ উষার পুণ্য লগনে উদিছে নবীন সূর্য গগনে..।’ আবহমান সূর্য একটি পুরনো বছরকে কালস্রোতের ঊর্মিমালায় বিলীন করে আবার শুরু করলো যাত্রা। নতুন সূর্যের কাছে মাথা রাখবে পুরনো বছর।
স্বপ্ন আর দিনবদলের অপরিমেয় প্রত্যাশার রক্তিম আলোয় উদ্ভাসিত শুভ নববর্ষ। হ্যাপি নিউইয়ার ২০১৯। বর্ষবরণের আবাহন রেখে কুয়াশামোড়া পান্ডুর সূর্য জীর্ণ ঝরা পল্লবের মতো সরল রৈখিক গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডারের পাতা থেকে কাল খসে পড়েছে। ফেলে আসা বছরটি এখন ‘পুরনো সেই দিনের কথা।’ নববর্ষের বার্তা ছড়িয়ে ফুরায়েছে একটি বছরের সব লেনদেন। ‘কালের যাত্রার ধ্বনিতে’ আজ প্রভাতে ‘রবির কর’ দশ দিগন্তে আলোকের নাচন তুলে চোখ মেলেছে নতুন দিনে, নতুন বছরে। দিন যায় দিন আসে। নতুন সূর্যকে অভিবাদন।
আলোড়ন আর তোলপাড় করা ঘটনাবহুল ২০১৮-এর অনেক ঘটনার রেশ নিয়েই মানুষ এগিয়ে যাবে। অনেক ঘটনা মুছে যাবে বিস্মৃতির ধুলোয়। যে প্রত্যাশার বিশালতা নিয়ে ২০১৮-এর প্রথম দিনটিকে বরণ করা হয়েছিল, সেই প্রত্যাশার সব কি পূরণ হয়েছে? এই প্রশ্নকে সমুখে নিয়ে সূচনা হলো আরও একটি বর্ষযাত্রা।
বিদায়ী ২০১৮ সালে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় এবং আলোচিত ঘটনা হলো ‘একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন’। বহুল প্রতীক্ষিত এ ভোটের মধ্য দিয়েই শেষ হলো বছরটি। সব রাজনৈতিক দলের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে আবারও পাঁচ বছর দেশ পরিচালনার সমর্থন পেলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকার। এছাড়া দেশের আলোচিত বিষয় ছিল সাবেক প্রধানমন্ত্রী বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার সাজা ও কারাবাস, কোটা সংস্কার আন্দোলন ও নিরাপদ সড়ক আন্দোলন। এপ্রিলের প্রথম সপ্তাহে কোটা সংস্কার আন্দোলনে অচল হয়ে পড়ে সারা দেশ। এরপর রাজধানীর একটি স্কুলের দুই শিক্ষার্থী সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হওয়ার জের ধরে আগস্টের প্রথম সপ্তাহ জুড়ে চলে নিরাপদ সড়ক আন্দোলন। পরে হত্যার উদ্দেশ্য প্রমাণে মৃত্যুদন্ড রেখে সড়ক পরিবহন বিল পাস হয়।
এছাড়া ১১ মে মহাকাশে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ প্রেরণ, জিডিপির ধারাবাহিক প্রবৃদ্ধি, গড় আয়ু বৃদ্ধি, স্বল্পোন্নত দেশের তালিকা থেকে উত্তরণ, বৈদেশিক মুদ্রার রেকর্ড রিজার্ভ, নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজের অগ্রগতি, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুত কেন্দ্র নির্মাণ কাজ শুরু ছিল বড় ঘটনা। দৃশ্যমান হয়েছে রাজধানীর প্রথম মেট্রো রেল নির্মাণ কাজ। শুরু হয়েছে দেশের প্রথম সুড়ঙ্গপথ কর্ণফুলী ট্যানেলের নির্মাণ কাজ।
আলোচনায় ছিল দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া খনির কোল ইয়ার্ড থেকে ১ লাখ ৪২ হাজার টন কয়লা উধাও হয়ে যাওয়া, আলোকচিত্রী শহিদুল আলম আটক, ভিকারুননিসার ছাত্রী অভিমানী অরিত্রির আত্মহত্যা, বজ্রপাতে তিন শতাধিক মানুষের মৃত্যু, ১১ জুন রাঙামাটিতে পাহাড়ধসে ১০ জনের মর্মান্তিক মৃত্যু, ১১ মার্চ নেপালের ত্রিভুবন বিমান বন্দরে বাংলাদেশের ইউএস বাংলা এয়ারলাইন্সের একটি বিমানের মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় ৫২ জনের মৃত্যু প্রভৃতি। এছাড়া সারা বছর দ্রব্যমূল্যের বাজারের অস্থিরতায় মানুষ ছিল পেরেশান।
এ বছরই আমরা হারিয়েছি বরেণ্য সাংবাদিক গোলাম সারওয়ারকে। আমাদের ছেড়ে গেছেন সাহিত্যিক শওকত আলী, শিক্ষাবিদ মুস্তাফা নূর উল ইসলাম, কবি বেলাল চৌধুরী, সংগীত শিল্পী আইয়ুব বাচ্চু, বরেণ্য চলচ্চিত্রকার আমজাদ হোসেনসহ অনেকে।
মিয়ানমার থেকে জোরপূর্বক বিতাড়িত রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে নিয়ে বছরের অধিকাংশ সময়ই নানামুখী কূটনৈতিক ততপরতায় ব্যস্ত থাকতে হয়েছে বাংলাদেশকে। আগের বছরের শেষ দিকে শরণার্থীর ঢল নামা কক্সবাজারের বিস্তীর্ণ অঞ্চলে তাদের ঠাঁই দিয়ে মানবিক দৃষ্টান্ত স্থাপন করে বাংলাদেশ।
বাংলাদেশের বাইরে ২০১৮ সাল পৃথিবীর ইতিহাসেও আরেকটি উল্লেখযোগ্য বছর। জুন মাসে দুই পারমাণবিক শক্তিধর শত্রুভাবাপন্ন দেশ আলোচনায় বসে। প্রথমবারের মতো আমেরিকান প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উনের সঙ্গে বৈঠক করেন।
সৌদী সাংবাদিক জামাল খাশোগি অক্টোবর মাসে সৌদির ঘাতক টিমের হাতে নিহত হন। জুন মাসেই বিশ্বকাপ ফুটবল ২০১৮ আয়োজন করে রাশিয়া। এ খেলায় শিরোপা জয় করে ফ্রান্স। এ বছর পৃথিবী জুড়ে অনেকবার চরম আবহাওয়া বয়ে এনেছে। ইউরোপের খরা থেকে শুরু করে যুক্তরাষ্ট্রের বনে আগুন আর এশিয়ায় চরম বৃষ্টিপাত হয়েছে। বিশ্ব এজেন্ডার শীর্ষে ছিল জলবায়ু পরিবর্তনের বিষয়টি। বিজ্ঞানীরা সতর্ক করে দিয়েছেন যে, পৃথিবীর তাপমাত্রা দিনে দিনে আরও বেড়ে চলেছে। সিরিয়া থেকে সেনা সরাতে ট্রাম্পের স্বাক্ষর, ক্যালিফোর্নিয়ায় দাবানলে ৮৬ জনের মৃত্যু, দেড় লাখ একর এলাকা পুড়ে ছাই, ৯২ বছর বয়সে নির্বাচন করে আবারও মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন মাহাথির মোহাম্মদ।
‘যায় দিন ভালো আসে দিন খারাপ’- এমন প্রবাদে বিশ্বাসী মানুষ তবু শান্তি আর সুখের প্রত্যাশায় দিন গুনবেন।

এ রকম আরো খবর

চলে গেলেন আহমেদ ইমতিয়াজ বুলবুল

বাংলা পত্রিকা ডেস্ক: প্রখ্যাত সঙ্গীত পরিচালক, গীতিকার, সুরকার ও বীরবিস্তারিত

শহীদ জিয়ার ৮৩তম জন্মবার্ষিকী ১৯ জানুয়ারী

ঢাকা ডেস্ক: বাংলাদেশের স্বাধীনতার ঘোষক, বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা, সাবেক রাষ্ট্রপতি ওবিস্তারিত

  • এফডিসি ও ঢাকার নাটকপাড়া এখন শূন্য : সব নায়িকাই এমপি হতে চায়
  • পাকিস্তানে পিটিএম : আরেকটি ‘বাংলাদেশ’ গড়ে উঠছে?
  • টিআইবির গুরুতর অভিযোগ : যা করতে পারে নির্বাচন কমিশন?
  • টিআইবি’র প্রতিবেদন প্রত্যাখ্যান সিইসির
  • ৫০ আসনের মধ্যে রাতেই ৩৩ আসনে ব্যালটে সিল ॥ ৪৭ আসনেই অনিয়ম
  • শেখ হাসিনা এমন নির্বাচন না করলেও পারতেন
  • প্রবীণ সাংবাদিক আমানুল্লাহ কবীর আর নেই
  • মানবকণ্ঠের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক আবু বকর চৌধুরী মারা গেছেন
  • হাসিনার কারচুপির নির্বাচনের বিরুদ্ধে একাট্টা পশ্চিমাবিশ্ব
  • মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম আর নেই
  • চার আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের দৃষ্টিতে বাংলাদেশের নির্বাচন
  • error: Content is protected !! Please don\'t try to copy.